ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৬শে সেপ্টেম্বর ২০১৭ , ১১ই আশ্বিন ১৪২৪, ভোর ৫:৩০

চতুর্থ বারের মত সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলো এরদোগান কিন্তু …

টানা চতুর্থ বারের মত সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলো এরদোগান নেতৃত্বধীন একে পার্টি কিন্তু অল্পের জন্য আটকে আছে সরকার গঠন প্রক্রিয়া। তুরষ্কে সরকার গঠনের জন্য ৫৫০ আসনের মধ্য ২৭৫ পেতে হবে, যেখানে একে পার্টি ৪০.৯০% ভোট এবং ২৫৮ আসন, ধর্মনিরপেক্ষ + বামপন্থি CHP ২৫% ভোট এবং ১৩২ আসন, জাতিয়তাবাদি MHP ১৬% ভোট এবং ৮০ আসন, কুর্দিদের স্বাধীনতাকামী HDP ১৩% ভোট এবং ৮০ আসন পেয়েছে।

 

এবারের নির্বাচনে কুর্দিস্তানের ইহুদীদের সহযোগীতায় পরিচালিত স্বাধীনতাকামী শসস্ত্র সংগঠনগুলি ঐক্যবদ্ধ হয়ে HDP এর ব্যানারে সংসদে আসাটা সমগ্র তুরষ্কের জন্য হুমকি স্বরুপ।তারা তাদের ১৪ টি জেলার ৯ টিতে ৮০-৮৭% ভোট পেয়েছে, অন্যদিকে একে পার্টি ব্যতিত অন্য কেউ এ জেলা গুলোতে আসন পায়নি।১০ টি জেলায় ধর্মনিরপেক্ষ CHP, ১ টি জেলায় জাতিয়তাবাদী এবং ৫৮ জেলায় একে পার্টি সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়েছে।

 

তুরষ্কের ইতিহাসে এরদোগান একমাত্র ব্যক্তি যিনি টানা তিনবার এককভাবে সরকার গঠন করেছিলেন।এবার উল্লেখযোগ্য ভোট পাইলেও অল্পের জন্য ঝামেলায় আটকে গেছে।তাহলে কি হবে এখন তুরষ্কে? সরকার গঠনের জন্য হয় কোয়ালিশন করতে হবে নতুবা ৪৫ দিন পর আবারো নির্বাচনের তারিখ ঘোষনা হবে।

৮০’র দশকে ফিলিস্তিনের জন্য লড়েছিলেন যে বাংলাদেশীরা
একজন সফল মেয়রের গল্প

Leave a Reply

Be the First to Comment!

Notify of
avatar
wpDiscuz
Top